মুসলমানদের আবাদী জমি জোরপূর্বক ভাবে দখল করে আছে হিন্দু সম্প্রদায়।

লালমনিরহাট জেলার কালীগঞ্জ এ ৮ং কাকিনা ইউনিয়ন কাকিনা বাজার সংলগ্ন কৃষক আইনুল হক এর ২৮ শতাংশ আবাদী জমি যার দাগ নং ৪৪১০ খতিয়ান নং ১০১৪ এস এ খতিয়ান যা ১৯৯২ এ রেকর্ডকৃত জমির দাগ নং ৬৬৯১ এবং খতিয়ান নং ১২০১ যার মালিকানা জনাব আইনুল হক নামের একজন সাধারণ কৃষক।

যানা গেছে বর্তমানে উক্ত জমি জোরপূর্বক ভাবে ২০০৯ ইং সন থেকে দখল করে আছে এলাকার কিছু সুনামধন্য হিন্দু জনগোষ্ঠী। এবং জোর পূর্বকভাবে অবৈধ মামলা করে উক্ত জমিটি ভোগ দখল করে আসছে তারা। বর্তমানে মামলাটি কালীগঞ্জ সহকারী জজ আদালতে চলমান রয়েছে।

উক্ত জমির মূল মালিক জনাব আইনুল হকের সমস্ত কাগজপত্র সঠিক থাকাতেও তিনি পাচ্ছেন না জমি নিয়ে সঠিক বিচার।

এ জমির মামলার বিষয়ে কালীগঞ্জ থানার ওসি আরজু মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন এর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন মামলাটি এস আই নাজমুল হক পরিচালা করছেন, তাই এস আই নাজমুল এর সাথে কথা বললে তিনি বলেন যেহেতু মামলাটি বর্তমানে চলমান রয়েছে সেহেতু উক্ত জমিতে দুপক্ষকেই নামতে নিষেধ করেছি, কোড যে রায় দিবে যার পক্ষে দিবে সেই জমিটি ভোগ দখল করবে। এবং কোড থেকেও এ নির্দেশনা দেওয়া আছে যে বর্তমানে জমিতে যেন কেউ না নামে। কোড এর নির্দেশ থাকা সত্বেও বিত্তশালী হিন্দু জনগোষ্ঠী জোর করে উক্ত জমিতে ইট দিয়ে প্রাচীর দেয়ার জন্য প্রস্তুতি নিলে আইনুল হক আবার থানায় অভিযোগ দায়ের করেন, এবং উক্ত অভিযোগের ভিত্তিতেই বর্তমানে এস আই নাজমুল হক ঘটনাস্থলে এসে প্রাচীর এর কাজ বন্ধ করে দেন, এবং বলেন মামলা চলাকালীন সময়ে সকলেই নীরব থাকুন জমিতে কোন কাজ করা যাবে না, মামলার রায় হলে যারপক্ষে রায় হবে তিনি জমিতে নামবেন এবং ভোগ করবেন, তার আগে নয়। তিনার এ কথার অনুপাতে বর্তমানে কাজ বন্ধ রয়েছে।

কৃষক আইনুল হক তার জমির বিষয়ে সমস্ত কাগজপত্র দেখে সঠিক তদন্ত করে সঠিক বিচার চেয়েছেন আইনের কাছে।

এই বিভাগের সর্বশেষ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button